ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ জুন, ২০২১ ()
শিরোনাম
Headline Bullet ইবিতে অস্থায়ী চাকুরীজীবিদের চাকুরী স্থায়ীকরণের দাবিতে আন্দোলনঃ Headline Bullet মেহেরপুরে আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে পুষ্পমাল্য অর্পণ ও পতাকা উত্তোলনঃ Headline Bullet মেহেরপুর কোমরপুরে জেলা পরিষদের স্বাস্থ্য উপকরন বিতরণঃ Headline Bullet মেহেরপুর পৌরসভার ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেট প্রকাশ ও উন্মুক্ত আলোচনা সভাঃ Headline Bullet মেহেরপুরে করোনায় দুজনের মৃত্যুঃ Headline Bullet মেহেরপুরে সিগারেট নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে বেশি দামে বিক্রি করার জরিমানাঃ Headline Bullet মেহেরপুরে ফেন্সিডিল রাখার অভিযোগে একজনের ১০ বছর কারাদন্ড: Headline Bullet খোকসার ওসমানপুর কলপাড়া জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে মা ও মেয়েকে পেটালেন মেজ বিশ্বাস! Headline Bullet কুষ্টিয়ায় করোনা ওয়ার্ডে রোগীদের বিশুদ্ধ পানি সরবরাহের ব্যবস্থা করলেন অজয় সুরেকা: Headline Bullet রাজবাড়ী‌তে অসহায় হতদ‌রিদ্র‌ ৬৫ জনকে, ২লক্ষ ৫০হাজার টাকার অনুদান‌রে চেক বিতরণ:

কুষ্টিয়া জেলায় রেকর্ড পরিমাণ জমিতে পেঁয়াজ চাষ

বাজারে পেঁয়াজের দাম চড়া থাকায় এবার পশ্চিমের জেলাগুলোতে রেকর্ড পরিমাণ জমিতে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। চাষিরাও বাম্পার ফলন আশা করছে।

ইতিমধ্যে আগাম চাষ করা হালি পেঁয়াজ উঠতে শুরু করেছে। এতে দাম কিছুটা কমেছে। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের যশোর আঞ্চলিক অফিস সূত্রে জানা যায়, চলতি রবি মৌসুমে যশোর জেলায় ১ হাজার ৪৪০ হেক্টরে, ঝিনাইদহে ৮ হাজার ৬৫০ হেক্টরে, মাগুরায় ৯ হাজার ১৫ হেক্টরে, কুষ্টিয়ায় ১২ হাজার ১৪০ হেক্টরে, চুয়াডাঙ্গায় ৯৫০ হেক্টরে ও মেহেরপুরে ২ হাজার ২৫ হেক্টরে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে ৩ হাজার ৮১১ হেক্টর বেশি জমিতে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। মাগুরা ও ঝিনাইদহ জেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, কোনো কোনো মাঠে শুধু পেঁয়াজ আর পেঁয়াজ। চাষিরা খেত পরিচর্যায় ব্যস্ত। ইতিমধ্যে আগাম চাষ করা পেঁয়াজ উঠতে শুরু করেছে। মঙ্গলবার দেশের অন্যতম প্রধান পেঁয়াজের হাট ঝিনাইদহের শৈলকুপায় পাইকারি প্রতি কেজি মুড়িকাটি পেঁয়াজ ৭৫ টাকা থেকে ৮০ টাকা দরে বিক্রি হয়। আর নতুন ওঠা হালি পেঁয়াজ ১০০ টাকা থেকে ১০২ টাকা কেজি দরে বিক্রি হয়। পাইকারি বাজারে এক সপ্তাহের ব্যবধানে কেজিপ্রতি ৫০ টাকা পর্যন্ত দাম কমেছে। খুচরা দাম কমেছে কেজিপ্রতি ৩০-৪০ টাকা। ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার সোন্দাহ গ্রামের চাষি হাবিবর রহমান জানান, গত বছর সাড়ে পাঁচ বিঘাতে পেঁয়াজ চাষ করেন। বিঘাপ্রতি ৮০ মণ করে ফলন হয়েছিল। পেঁয়াজ ওঠার পর দাম ৭০০/৮০০ টাকা ছিল। সর্বশেষ তিনি তিন মণ পেঁয়াজ ৮ হাজার টাকা মণ দরে বিক্রি করেন। ভালো লাভ হয়েছিল। এবারো সাড়ে পাঁচ বিঘাতে পেঁয়াজ চাষ করেছেন। শৈলকুপা উপজেলা কৃষি অফিসার সনজয় কুমার কুন্ডু বলেন, এ উপজেলায় ৭ হাজার ১০০ হেক্টরে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। ১ লাখ ৪০ হাজার টন পেঁয়াজ উৎপাদন হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।


     এই বিভাগের আরো খবর