ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী, ২০২২ ()
শিরোনাম
Headline Bullet একজন আদর্শবান চৌকস পুলিশ অফিসার খোকসা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সৈয়দ আশিকুর রহমান Headline Bullet খোকসায় গৃহবধুকে শ্বাসরোধ করে হত্যা Headline Bullet উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা না থাকায় পিয়ন যখন কর্মকর্তা- Headline Bullet র‍্যাবের অভিযানে ইয়াবাসহ আটক ১ Headline Bullet বরগুনা তালতলীতে শ্বশুর বাড়ি থেকে জামাইয়ের লাশ উদ্ধারঃ Headline Bullet রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া যৌনপল্লীর গেটের সামনে থেকে ১৩ শত গ্রাম গাঁজাসহ কুষ্টিয়ার শামীন গ্রেফতার Headline Bullet ইবিতে ৬৮ কোটি টাকার মেগা প্রকল্পের কাজে অনুমোদনহীন রড ব্যবহারের অভিযোগঃ Headline Bullet রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে দেশীয় অস্ত্র গুলিসহ দুইজন গ্রেফতার: Headline Bullet রাজবাড়ী ডিবিপুলিশের অভিযানে ৪০০শত পিছ ইয়াবাসহ মাদক কারবারি গ্রেফতার Headline Bullet রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ বাজারে রেলগেট যেন মরণ ফাঁদ : গেটম্যান না থাকায় দুর্ঘটনার আশঙ্কা

কুষ্টিয়া জেলায় রেকর্ড পরিমাণ জমিতে পেঁয়াজ চাষ

বাজারে পেঁয়াজের দাম চড়া থাকায় এবার পশ্চিমের জেলাগুলোতে রেকর্ড পরিমাণ জমিতে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। চাষিরাও বাম্পার ফলন আশা করছে।

ইতিমধ্যে আগাম চাষ করা হালি পেঁয়াজ উঠতে শুরু করেছে। এতে দাম কিছুটা কমেছে। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের যশোর আঞ্চলিক অফিস সূত্রে জানা যায়, চলতি রবি মৌসুমে যশোর জেলায় ১ হাজার ৪৪০ হেক্টরে, ঝিনাইদহে ৮ হাজার ৬৫০ হেক্টরে, মাগুরায় ৯ হাজার ১৫ হেক্টরে, কুষ্টিয়ায় ১২ হাজার ১৪০ হেক্টরে, চুয়াডাঙ্গায় ৯৫০ হেক্টরে ও মেহেরপুরে ২ হাজার ২৫ হেক্টরে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে ৩ হাজার ৮১১ হেক্টর বেশি জমিতে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। মাগুরা ও ঝিনাইদহ জেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, কোনো কোনো মাঠে শুধু পেঁয়াজ আর পেঁয়াজ। চাষিরা খেত পরিচর্যায় ব্যস্ত। ইতিমধ্যে আগাম চাষ করা পেঁয়াজ উঠতে শুরু করেছে। মঙ্গলবার দেশের অন্যতম প্রধান পেঁয়াজের হাট ঝিনাইদহের শৈলকুপায় পাইকারি প্রতি কেজি মুড়িকাটি পেঁয়াজ ৭৫ টাকা থেকে ৮০ টাকা দরে বিক্রি হয়। আর নতুন ওঠা হালি পেঁয়াজ ১০০ টাকা থেকে ১০২ টাকা কেজি দরে বিক্রি হয়। পাইকারি বাজারে এক সপ্তাহের ব্যবধানে কেজিপ্রতি ৫০ টাকা পর্যন্ত দাম কমেছে। খুচরা দাম কমেছে কেজিপ্রতি ৩০-৪০ টাকা। ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার সোন্দাহ গ্রামের চাষি হাবিবর রহমান জানান, গত বছর সাড়ে পাঁচ বিঘাতে পেঁয়াজ চাষ করেন। বিঘাপ্রতি ৮০ মণ করে ফলন হয়েছিল। পেঁয়াজ ওঠার পর দাম ৭০০/৮০০ টাকা ছিল। সর্বশেষ তিনি তিন মণ পেঁয়াজ ৮ হাজার টাকা মণ দরে বিক্রি করেন। ভালো লাভ হয়েছিল। এবারো সাড়ে পাঁচ বিঘাতে পেঁয়াজ চাষ করেছেন। শৈলকুপা উপজেলা কৃষি অফিসার সনজয় কুমার কুন্ডু বলেন, এ উপজেলায় ৭ হাজার ১০০ হেক্টরে পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। ১ লাখ ৪০ হাজার টন পেঁয়াজ উৎপাদন হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।


     এই বিভাগের আরো খবর